মহেশখালী প্রতিনিধি

মহেশখালীতে নিখোঁজ মা-ছেলের ১০দিনেও সন্ধান না পাওয়ায় হতাশ হয়ে পড়েছে ভিকটিম পরিবার। এ নিয়ে পরিবারের মনে আতংকের পাশাপাশি ভয় সৃষ্টি হয়েছে আদৌও কি বেঁচে আছে নাকি খুন করে গুম করা হয়েছে? তা নিয়ে চিন্তার শেষ নেই ভূক্তভোগী পরিবারের।

স্থানীয়সূত্রে জানা যায় গত ৯ আগস্ট আনুমান বিকাল সাড়ে ৫টায় সময় চিকিৎসার উদ্দ্যেশ্য হোয়ানক ইউনিয়নের ছন খোলা পাড়া গ্রামের মোঃ রশিদ এর স্ত্রী আকলিমা(৩০) ও তার ছেলে আনোয়ার তানভির লাবিব(১০) কালারমারছড়া বাজারে যাওয়ার পথে নিখোঁজ হয়।

এদিকে নিখোঁজ হওয়ার পর স্ত্রী-সন্তানের সন্ধান না পেয়ে গত ১০ই আগস্ট মহেশখালী থানায় একটি সাধারণ নিখোঁজ ডায়েরি (৪২৮) দায়ের করেন নিখোঁজ আকলিমার স্বামী মোঃ রশিদ। তা থেকে অধ্যবদি স্ত্রী-সন্তানের কোন ধরনের সন্ধান পাইনি। এদিকে পুলিশ থেকেও কাঙ্কিত সহযোগিতা পাচ্ছে না বলে জানান আকলিমার স্বামী রশিদ। অন্যদিকে গৃহবধূ আকলিমা কি সেচ্ছায় আত্মগোপনে গিয়ে অন্যকে ফাঁসানোর চেষ্টা করছে কিনা তা নিয়েও চলছে আলোচনা-সমালোচন। তবে যায় হউক না কেন নিখোঁজ মা-ছেলের সন্ধান চান ভিকটিম পরিবারের পাশাপাশি স্থানীয় এলাকাবাসী। অন্যদিকে সঠিক তদন্তের মাধ্যমে রহস্যের উৎঘটনের দাবী সচেতন মহলের।

অন্যদিকে স্থানীয় ইউপি আব্দুল করিম জানান নিখোঁজ হওয়ার ১০ দিন অতিবাহিত হয়ে গেলেও কোন ধরনের খোঁজ না পেয়ে ভিকটিম পরিবার ও এলাকার সাধারণ মানুষের নানা ধরণের প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হচ্ছে। তাই অতি দ্রুতসময়ে তাদের সন্ধান পেতে প্রশাসনের প্রতি অনুরোধ জানান।

নিখোঁজের বিষয়ে তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই বিপ্লব বড়ুয়া জানান,বিষয়টি আমরা গুরুত্বসহকারে নিয়ে প্রযুক্তির মাধ্যমে সকল দিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে। আশা করি অতি শীঘ্রই একটা সুরহা পেয়ে যাব।